তেল-সারের দাম বাড়িয়ে কৃষককে মেরে ফেলা হচ্ছে: রসিক মেয়র

তেল-সারের দাম বাড়িয়ে কৃষককে মেরে ফেলা হচ্ছে: রসিক মেয়র

জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা বলেছেন, মুখের গ্রাস কেড়ে নিয়ে দেশে পদ্মাসেতু, মেট্রোরেলের মত মেগা প্রকল্প সাধারণ মানুষ চায় না। সাধারণ মানুষ চায় তিন বেলা পেট ভরে ভাত খেতে , স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে। তেলের দাম বৃদ্ধিতে কতগুলো সেক্টরে প্রভাব পড়েছে তা সরকারের অজানা। তেল-সারের দাম বাড়িয়ে আজ কৃষককে মেরে ফেলা হচ্ছে। পুলিশ, বিজিবি দিয়ে দেশ শাসন করতে চাইলে তা হবে বোকার স্বর্গে বাস করা। এভাবে চলতে থাকলে এ বীরের জাতি কয়েকদিনের নস্যি সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করবে।

বুধবার দুপুরে জ্বালানি তেল, সার, নিত্য পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি, বিদ্যুতের ঘনঘন লোডশেডিং ও অর্থপাচারের প্রতিবাদে নগরীর পায়রা চত্ত্বরে সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মেয়র বলেন, দেশের সংকটে জাতীয় পার্টি কখনো ঘরে বসে থাকেনি। আজকের আন্দোলন তো একটি সূচনা মাত্র। গণমানুষের এ দাবি মানা না হলে আগামীতে জাতীয় পার্টির ঘাঁটি রংপুর থেকে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।

মহানগর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক এসএম ইয়াসিরের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লোকমান হোসেন, জেলা যুব সংহতির সভাপতি নাজিম উদ্দিন, মহানগর যুব সংহতির সাধারণ সম্পাদক আলাল উদ্দিন শান্তি কাদেরী। এর আগে জেলা, মহানগর ও অঙ্গসংগঠনের সহস্রাধিক নেতাকর্মীদের অংশগ্রহণে সেন্ট্রাল রোডস্থ দলীয় কার্যালয় থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে। পরে তারা সড়ক অবরোধ করে পায়রা চত্ত্বরে সমাবেশ করে। এ সময় দু’ধারে শত শত যানবাহন আটকা পড়ে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net