ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন করতে বলছে যুক্তরাষ্ট্র

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন করতে বলছে যুক্তরাষ্ট্র

মানবাধিকার, শ্রম স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রকে এগিয়ে নিতে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন এবং বাংলাদেশের সাথে অংশীদারিত্বের প্রতীক্ষায় রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। সম্প্রতি আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের সঙ্গে ঢাকায় নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত পিটার হাস সাক্ষাৎ করার পর দেশটির তরফে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করা হয়েছে।রবিবার ঢাকাস্থ যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজে লেখা হয়েছেঃ

“রাষ্ট্রদূত হাস পারস্পরিক সহযোগিতার বিভিন্ন ক্ষেত্র বিশেষত, মত প্রকাশের স্বাধীনতা নিশ্চিত করার গুরুত্ব বিষয়ে আলোচনার জন্য আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, এমপির সাথে সাক্ষাৎ করে আনন্দিত। সাইবার অপরাধ রোধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন প্রণয়ন করা হলেও কিছু ক্ষেত্রে এ আইনের অপব্যবহার ঘটেছে বলে স্বীকার করেন আইনমন্ত্রী। তারা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংস্কারের গুরুত্ব বিষয়ে আলোচনা করেন যাতে এর আওতায় বাক স্বাধীনতা বা সংবাদ মাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব না করেই সাইবার অপরাধ প্রতিরোধ করা সম্ভব হয়।

আমরা মানবাধিকার, শ্রম স্বাধীনতা ও গণতন্ত্রকে এগিয়ে নিতে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন এবং বাংলাদেশের সাথে অংশীদারিত্বের প্রতীক্ষায় আছি।”

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে রাষ্ট্রদূত হাস আইনমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে গিয়েছিলেন। সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে আইনমন্ত্রীও জানান, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের কিছু অপব্যবহার হয়েছে বলে তিনি স্বীকার করেছেন।

তবে মন্ত্রী এটাও বলেন যে, রাষ্ট্রদূতকে জানানো হয়েছে, ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট কখনোই বাকস্বাধীনতা বা গণমাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব করেনি।

এর ফলে গণমাধ্যম মুক্তভাবে তাদের সংবাদ পরিবেশন করতে পারছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net